বাবার ১০০ সিনেমার একটিতেও নেই শান্ত খান: কারন জানালেন নিজেই

একটিতেও নেই শান্ত খান

একটিতেও নেই শান্ত খান

গত ১৬ ফেব্রুয়ারি সন্ধ্যা ৭টায় বাংলাদেশ চলচ্চিত্র উন্নয়ন কর্পোরেশন (বিএফডিসির) জসিম ২ নম্বর ফ্লোরে এক অনুষ্ঠানের মাধ্যমে একসঙ্গে ১০০ সিনেমার ঘোষণা দিয়েছিলেন আলোচিত প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান শাপলা মিডিয়ার কর্নধার সেলিম খান। একসঙ্গে শুরু না করে বছরজুড়েই চলবে সিনেমাগুলোর নির্মান কাজ এবং বৈচিত্রময় গল্পে ভিন্ন ভিন্ন পরিচালক ও শিল্পীদের নিয়ে সিনেমাগুলো নির্মিত হবে বলেও জানিয়েছিলেন তিনি। এরমধ্যে ১৫ টি সিনেমাটির শুটিং শুরু হবে আগামী ২২শে ফেব্রুয়ারি থেকে শুরু হচ্ছে বলেও জানান সেলিম খান।

এরই ধারাবাহিকতায় সিনেমাগুলো কারা পরিচালনা করবেন প্রত্যেকের নামও প্রকাশ করেছে সেলিম খানের প্রযোজনা সংস্থা শাপলা মিডিয়া। পাশাপাশি বেশকিছু নায়ক-নায়িকার নামও ঘোষণা করেছেন, যার ১০০ সিনেমায় অভিনয় করতে যাচ্ছেন। কিন্তু প্রকাশিত তারকাদের মধ্যে নেই শাপলা মিডিয়ার কর্নধার সেলিম খানের ছেলে শান্ত খান। একটি অনলাইন পত্রিকায় প্রকাশিত প্রতিবেদন অনুযায়ী এখন পর্যন্ত একটি সিনেমাতেও নেই শান্ত খান।

উক্ত অনলাইন পত্রিকার সাথে আলাপকালে এ প্রসঙ্গে শান্ত খান বলেন, ‘আব্বু ১০০ সিনেমা ঘোষণা করলেও সেগুলোর একটিও আমি করবো না। এজন্য যেদিন ১০০ সিনেমার ঘোষণা দেওয়া হয়েছে সেদিন আমি ওই অনুষ্ঠানে যাইনি। গ্যাংস্টার সিনেমার শুটিং করেছি। এরপর পিয়া রে, বুবুজান, যোগ্য সন্তান সিনেমা তিনটি করবো। এগুলো দিয়েই এ বছরটা শেষ হবে। নতুন করে আর কোনো সিনেমা করবো না। আমার এসব সিনেমা অনেক আগে থেকে চূড়ান্ত। তাই এগুলো ওই ঘোষণা দেয়া ১০০ সিনেমার বাইরে কাউন্ট হবে।’

এছাড়া ভালো সিনেমা নির্মানে বাজেটের উপর গুরুত্বারোপ করে তিনি বলেন, ‘আমার সর্বশেষ সিনেমা ‘টুঙ্গিপাড়ার মিয়াঁভাই’ এর বাজেট ৮৩ লাখ টাকা। এমন বড় বাজেটের সিনেমা ছাড়া করব না। আমি মনে করি, সিনেমা হচ্ছে রাজকীয় ব্যাপার। ৫০ লাখের নিচের বাজেটের সিনেমা করতে হলে পরিচালক হতে হবে সেই মাপের।’

একটিতেও নেই শান্ত খান

ঘোষিত ১০০ সিনেমায় না থাকার কারন হিসেবে পরিচালকদের গল্প, নির্মাণ কনসেপ্ট পছন্দ হয়নি উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘১০০ সিনেমায় নেই কেন জানতে চাই শান্ত বলেন, এখানে যেসব পরিচালক আছেন তাদের যে কনসেপ্ট সেগুলোর সঙ্গে আমার মেলে না। আমি ভবিষ্যৎ চিন্তা করে কাজ করতে চাচ্ছি কিন্তু এখানে যেসব পরিচালক আছেন তাদের মধ্যে আমার এ চিন্তার প্যাটার্নে মিল পাই না। আমার প্রথম সিনেমা ‘প্রেম চোর’ এর গল্প শুধু আব্বুর (সেলিম খান) পছন্দ করা। এরপর সাতটা সিনেমা করছি সবগুলো গল্প, পরিচালক, আমার পছন্দ ও ভবিষ্যৎ ভেবে কাজ করছি। সিনেমাগুলো মুক্তি পেলে মানুষ বুঝবে আমি কতটা চেষ্টা করছি। পরিচালককে বলে দেই, আমি যদি না পারি তবে আমাকে শাসন করতে, আমার থেকে কাজ আদায় করে নিতে। প্রযোজকের ছেলে বলে আমাকে কোনো ছাড় যেন কেউ না দেন।’ নির্মাতাদের আরো আপগ্রেড হতে হবে বলেও মনে করছেন শান্ত খান।

নিজের ক্যারিয়ারের চিন্তা করেই এ সিদ্ধান্ত নিয়েছেন উল্লেখ করে শান্ত খান বলেন, ‘আব্বুকে ডিরেক্ট বলেছি যে, এই ১০০ সিনেমার মধ্যে আমি থাকবো না। কাজ করলে আমি আমার পছন্দমতো করবো। আগে আমি গল্প শুনি তারপর দেখি কোন পরিচালক গল্পে যাই। তার সঙ্গে কাজ করবো। অনেকবার বলেছি, একটু সময় লাগলেও আমি কাজ দিয়ে প্রমাণ করবো। ২০২২ সালে সিনেমা করলে ২০৩০ সালের গল্প দেখে করবো।’

উত্তম আকাশ পরিচালিত ‘প্রেম চোর’ সিনেমার মাধ্যমে ঢালিউডে নাম লিখান শাপলা মিডিয়ার কর্নধার সেলিম খান পুত্র শান্ত খান। এরমধ্যে সম্প্রতি তিনি শেষ করেছেন শামীম আহমেদ রনি পরিচালিত ‘বিক্ষোভ’ সিনেমার কাজ। এছাড়াও শান্ত খান অভিনীত ‘টুঙ্গিপাড়ার মিয়াভাই’ নাম আরেকটি সিনেমা সেন্সরে জমা দেয়া হয়েছে। আরও তিন সিনেমা ‘গ্যাংস্টার’, ‘বুবুজান’ এবং ‘পিয়া রে’ ধারাবাহিকভাবে করছেন শান্ত। এ তিনটি সিনেমা দিয়েই চলতি বছর শেষ করার ইচ্ছে শান্তর।

আরো পড়ুনঃ
১০০/৫০০ নয় একটি ভালো সিনেমা ঘোরাবে ইন্ডাস্ট্রির চাকা: শাকিব খান
একসঙ্গে শাপলা মিডিয়ার ১০০ সিনেমা নির্মাণের ঘোষণা!
সাইমন এবং শান্তকে নিয়ে শাহীন সুমনের ‘গ্যাংস্টার’: নায়িকা নিয়ে থাকছে চমক
‘গ্যাংষ্টার’ এখন গাজীপুর: শুরু হলো শাহীন সুমনের নিতুন সিনেমা

By নিউজ ডেস্ক

Related Posts