দক্ষিনের সিনেমার সবচেয়ে বড় বক্স অফিস সংঘর্ষঃ প্রদর্শকদের কপালে চিন্তার ভাঁজ

দক্ষিনের সিনেমার সবচেয়ে বড়

করোনার কারনে দীর্ঘদিন ধরে আটকে আছে বড় বাজেটের একাধিক সিনেমা। করোনা পরবর্তি সময়ে তাই নির্মাতারা প্রস্তুতি নিচ্ছেন এই সিনেমাগুলোর মুক্তির। বড় বাজেটের সিনেমার হওয়ার কারনে সবাই নিজেদের সিনেমাগুলো মুক্তি দিতে চাচ্ছেন উৎসবকে কেন্দ্র করে। তাই দক্ষিনের সিনেমার মুক্তির জন্য সবচেয়ে বড় উৎসব সংক্রান্তি নিয়ে ইতিমধ্যে নির্মাতাদের মধ্যে দেখা গেছে উম্মাদনা। আগেই জানা গিয়েছিলো সংক্রান্তি উপলক্ষ্যে আগামী বছরের ৭ই জানুয়ারি এবং ১৪ই জানুয়ারি যথাক্রমে মুক্তি পাচ্ছে ‘আরআরআর’ এবং ‘রাধে শ্যাম’ সিনেমা দুটি। এদিকে সম্প্রতি জানা গেছে ১২ই জনুয়ারি মুক্তি পেতে যাচ্ছে পবন কল্যাণ অভিনীত নতুন সিনেমা ‘ভিমলা নায়েক’। যার ফলে সংক্রান্তিতে দক্ষিনের সিনেমার সবচেয়ে বড় বক্স অফিস সংঘর্ষের সম্ভাবনা দেখা গেছে।

- Advertisement -

এদিকে মাত্র এক সপ্তাহের ব্যবধানে বড় তারকাদের তিনটি সিনেমার মুক্তির কারনে ইতিমধ্যে টলিউডে শুরু হয়েছে আলোচনার ঝড়। ‘আরআরআর’, ‘রাধে শ্যাম’ এবং ‘ভিমলা নায়েক’ তিনটি সিনেমাই দর্শকদের আগ্রহের শীর্ষে। এছাড়া এই সিনেমাগুলোতে অভিনয় করেছেন সময়ের জনপ্রিয় তারকারা। অন্দ্র প্রদেশে টিকেটের মূল্য নিয়ে চলমান সমস্যার পাশাপাশি এই সিনেমাগুলো নিয়ে প্রদর্শকরা রয়েছেন অনিশ্চয়তায়। প্রতিটি সিনেমার ব্যবসায়িক সাফল্যের সম্ভাবনা বিবেচনায় কোন সিনেমাটি প্রদর্শন করবেন সেটা নিয়ে চলছে আলোচনা। এছাড়া একই সময়ের মুক্তির কারনে তিনটি সিনেমাই বক্স অফিসে ক্ষতির সম্মুখীন হবে বলেও মনে করছেন সংশ্লিষ্টরা।

দক্ষিনের সিনেমার সবচেয়ে বড় বক্স অফিস সংঘর্ষটি তাই বর্তমানে টলিউডের সবচেয়ে আলোচ্য বিষয়ে পরিণত হয়েছে। তিনটি সিনেমাকে সম্ভাব্য স্ক্রিন দেয়ার মত যতেষ্ট প্রেক্ষাগৃহ তেলুগুতে নেই। এরমধ্যে যদি কোন সিনেমার ব্যাপারে দর্শকরা নেতিবাচক কোন ধরনা পেয়ে যান তাহলে প্রেক্ষাগৃহ মালিকরা চরমভাবে ক্ষতিগ্রস্থ হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। সে ক্ষেত্রে প্রদর্শক এবং প্রাক্ষগৃহ মালিক উভয়কেই ক্ষতি গুনতে হবে বলে মনে করছেন সবাই। এই পরিস্থিতিতে তেলুগু সিনেমার নির্মাতা, প্রদর্শক এবং প্রেক্ষাগৃহ মালিকরা একটি আলোচনায় বসেছেন বলে জানিয়েছে ভারতের প্রভাবশালী সংবাদ মাধ্যম টাইমস অফ ইন্ডিয়া।

- Advertisement -

একটি সূত্রের উল্লেখ করে সংবাদ মাধ্যমটি জানিয়েছে, চলমান এই আলোচনার প্রেক্ষিতে সংক্রান্তিতে সিনেমার মুক্তিতে বড় ধরনের পরিবর্তন দেখা যেতে পারে। সিনেমাগুলোর মুক্তির তারিখ পরিবর্তনের পাশাপাশি প্রদর্শকদের সাথে অন্যান্য ব্যবসায়িক বিষয়গুলোরও একটা সমাধান আসতে পারে উল্লেখ আছে উক্ত প্রতিবেদনে। প্রসঙ্গত, এর আগে মহেশ বাবু অভিনীত ‘সরকারু ভারী পাতা’ সিনেমাটি সংক্রান্তিতে মুক্তির কথা ছিলো। কিন্তু একই সময়ে একাধিক সিনেমার মুক্তির কারনে পিছিয়ে যায় ‘সরকারু ভারী পাতা’ সিনেমাটির মুক্তি। নতুন ঘোষনা অনুযায়ী আগামী ১লা এপ্রিল মুক্তির পেতে যাচ্ছে মহেশ বাবু অভিনীত এই সিনেমা।

উল্লেখ্য যে, এসএস রাজামৌলী পরিচালিত ‘আরআরআর’ সিনেমাটির প্রধান কয়েকটি চরিত্রে অভিনয় করেছেন রামচরন, এনটিআর জুনিয়র, অজয় দেবগন এবং আলিয়া ভাট। অন্যদিকে রাধা কৃষ্ণ পরিচালিত ‘রাধে শ্যাম’ সিনেমাটির মাধ্যমে আবারো রোম্যান্টিক সিনেমায় অভিনয় করছেন প্যান-ইন্ডিয়া তারকা প্রভাস। তার বিপরীতে সিনেমাটিতে দেখা যাবে পূজা হেগকে। আর ‘ভিমলা নায়েক’ সিনেমাটির নাম ভূমিকায় অভিনয় করছেন পাওয়ার স্টার খ্যাত পবন কল্যাণ। তার সাথে সিনেমাটিতে আরো অভিনয় করেছেন রানা দাজ্ঞুবতি।

- Advertisement -

আরো পড়ুনঃ
বিজয়কে পিছনে ফেলে তামিলনাড়ু বক্স অফিসে রজনীকান্তের নতুন রেকর্ড!
‘আরআরআর’ কি তেলুগু নির্মাতাদের তাদের সিনেমার মুক্তির তারিখ পরিবর্তনের কারন?
‘আরআরআর’ থেকে ‘আরসি১৭’: রাম চরন অভিনীত যত প্রতীক্ষিত সিনেমা

এ সম্পর্কিত

আরো পড়ুন

- Advertisement -

সর্বশেষ

মুক্তি প্রতীক্ষিত

  • লিডার আমিই বাংলাদেশ
    লিডার আমিই বাংলাদেশ