রবি তেজা অভিনীত ‘খিলাড়ি’ নির্মাতাদের বিরুদ্ধে আদালতে মামলা দায়ের

রবি তেজা অভিনীত ‘খিলাড়ি’

একই নামে যদি আগে কোন সিনেমা নির্মিত হয়ে থাকে তাহলে আগের নির্মাতাদের কাছ থেকে নাম ব্যবহারের অনুমতি নেয়ার একটি প্রক্রিয়া রয়েছে। যদিও সাধারণত আগের সিনেমাটির নির্মাতারা এর জন্য কোন আর্থিক লেনদেন ছাড়াই অনুমতি দিয়ে থাকেন। অনুমতি না নিয়ে একই নামে সিনেমা নির্মান করলে সেটা শেষ পর্যন্ত নতুন সিনেমাটির নির্মাতাদের জন্য আইনি জটিলতার কারন হতে পারে। এমনটাই দেখা গেছে সম্প্রতি মুক্তি প্রাপ্ত তেলুগু ‘খিলাড়ি’ সিনেমার ক্ষেত্রে। জানা গেছে রবি তেজা অভিনীত ‘খিলাড়ি’ নির্মাতাদের বিরুদ্ধে আদালতে মামলা দায়ের করেছেন রতন জৈন।

- Advertisement -

সম্প্রতি হিন্দি এবং তেলুগু ভাষায় মুক্তি পেয়েছে মাস মহারাজা রবি তেজা অভিনীত ‘খিলাড়ি’ সিনেমাটি। বলিউডে ‘খিলাড়ি’ নামে একটি জনপ্রিয় সিনেমা রয়েছে যার প্রযোজক হচ্ছে রতন জৈন। ১৯৯২ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত আব্বাস মাস্তান পরিচালিত সিনেমাটির নাম ভূমিকায় অভিনয় করেছিলেন অক্ষয় কুমার। সিনেমাটি বক্স অফিসেও ব্যবসা সফল হয়েছিলো। ভারতীয় সংবাদ মাধ্যমে প্রকাশিত খবরে জানা গেছে অনুমতি না নিয়েই ‘খিলাড়ি’ নাম ব্যবহারের অভিযোগে রবি তেজা অভিনীত ‘খিলাড়ি’ নির্মাতাদের বিরুদ্ধে দিল্লী আদালতে মামলা দায়ের করেছেন তিনি।

এ প্রসঙ্গে ভেনাস রেকর্ডস এন্ড টেপসের স্বত্বাধিকারী রতন জৈন বলেন, ‘আমরা প্রযোজক এবং প্রদর্শক – দুইজনের বিরুদ্ধেই এই মামলাটি দায়ের করেছি’। এমনকি তেলুগুতেও ‘খিলাড়ি’ ব্যবহার করা যাবেনা উল্লেখ করে তিনি আরো বলেন, ‘আমরা পুরো ভারতে খিলাড়ি-এর ট্রেডমার্ক করেছি। শুধুমাত্র খিলাড়ি নাম ব্যবহার করে কেউই সিনেমা নির্মান করতে পারবে না। সাবসে বারা খিলাড়ি, খাত্রকে খিলাড়ি ইত্যাদিতে কোন সমস্যা নেই। কিন্তু খিলাড়ি আমার ট্রেডমার্ক।‘

- Advertisement -

একই নামে সিনেমা মুক্তির কারনে বলিউডের অতীতের আলোচিত সিনেমাগুলো নিয়ে বিভ্রান্তি দেখা যাবে উল্লেখ করে তিনি আরো বলেন, ‘দক্ষিনের সিনেমার ক্ষেত্রে বর্তমানে প্রেক্ষাপট পুরোপুরি বদলে গেছে। বিশেষ করে পুষ্পা সিনেমাটির সফলতার পর দক্ষিনের নির্মাতারা একই দিনে হিন্দিতে তাদের সিনেমার মুক্তি দিতে চাচ্ছেন। সেক্ষেত্রে একই নাম রাখায় বলিউডের সিনেমা নিয়ে দেখা যাচ্ছে বিভ্রান্তি। এখন গুগলে কেউ যদি খিলাড়ি লিখে সার্চ দেয় তাহলে তেলুগু সিনেমার কথা আসে। কপি রাইট আইনের উপস্থিতিতে এমনটা হওয়া উচিৎ নয়।‘

আরো জানা গেছে ৯ই ফেব্রুয়ারি মামলাটির সকল কাগজপত্র প্রস্তুত করে ১১ই ফেব্রুয়ারি মামলাটি দায়ের করেন রতন জৈন। তবে ১১ই ফেব্রুয়ারি সিনেমাটি মুক্তি পাওয়ার কারনে এই মুহুর্তে মুক্তি থামানো সম্ভব নয় বলে জানিয়েছে আদালত। তবে রতন জৈন জানিয়েছেন প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি স্থগিত তারা করতে চান না। তবে পরবর্তিতে টিভি এবং ডিজিটাল সহ অন্যান্য মাধ্যমে মুক্তির ক্ষেত্রে ‘খিলাড়ি’ নাম ব্যবহারে তাদের আপত্তি থাকবে।

- Advertisement -

এদিকে রবি তেজা অভিনীত ‘খিলাড়ি’ সিনেমাটির হিন্দি সংস্করণের ১১ই ফেব্রুয়ারি সকালের সকল প্রদর্শনি বাতিল করা হয়েছে বলে জানা গেছে। সেন্সর সংক্রান্ত সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন হতে দেরি হওয়ার কারনে এমন সিদ্ধান্ত নিতে হয়েছে সিনেমাটির নির্মাতাদের। ১১ই ফেব্রুয়ারি সকালে সেন্সর ছাড়পত্র পাওয়ার পর দুপুর ১২টা থেকে প্রেক্ষাগৃহে সিনেমাটির প্রদর্শনি শুরু হয়েছে। এছাড়া কিছু কিছু এলাকায় সিনেমাটি ১২ই ফেব্রিয়ারি মুক্তি পেতে যাচ্ছে বলে জানিয়েছেন নির্মাতারা।

আরো পড়ুনঃ
অক্ষয়ের সাথে লড়াই এড়াতে পিছিয়ে যাচ্ছে ভিকি কৌশলের সিনেমা!
বড় পর্দায় ফিরছে ‘শক্তিমান’: প্রধান চরিত্রে থাকছেন একজন বড় তারকা!
জানা গেলো অক্ষয় কুমারের ‘পৃথ্বীরাজ’ সিনেমার মুক্তির নতুন তারিখ

এ সম্পর্কিত

আরো পড়ুন

- Advertisement -
- Advertisement -

সর্বশেষ

মুক্তি প্রতীক্ষিত

  • লিডার আমিই বাংলাদেশ
    লিডার আমিই বাংলাদেশ