স্বঘোষিত লেডি সুপারস্টার কঙ্গনা রানাউতের বাস্তবতাঃ টানা ৯টি সিনেমা ফ্লপ!

লেডি সুপারস্টার কঙ্গনা

অনুরাগ বসু পরিচালিত ‘গ্যাংস্টার’ সিনেমার মাধ্যমে বলিউডে অভিষিক্ত হয়েছিলেন কঙ্গনা রানাউত। প্রথম সিনেমায়ই নিজের অভিনয় দিয়ে সবার নজর কেড়েছিলেন এই তারকা। এরপর বেশ কয়েকটি সিনেমায় অভিনয় করে বলিউডের নিজের অবস্থান পাকাপোক্ত করেন তিনি। তবে বলিউডে কঙ্গনা রানাউতের সফলতার গল্পটা শুরু হয়েছিলো আনন্দ এল রাই পরিচালিত ‘তনু ওয়েডস মনু’ সিনেমার মাধ্যমে। প্রথম পর্বের পাশাপাশি সিনেমাটির দ্বিতীয় পর্বও বক্স অফিসে ব্যবসা সফল হয়েছিলো। এছাড়া তার অভিনীত ‘কুইন’ সিনেমাটিও দুর্দান্ত ব্যবসা করতে সক্ষম হয়।

- Advertisement -

শুধু বক্স অফিসে সাফল্য নয় ভালো অভিনয়ের স্বকৃতি হিসেবে পেয়েছেন একাধিক পুরষ্কার। ৪টি জাতীয় চলচ্চিত্র পুরষ্কার সহ জিতেছেন একাধিক পুরষ্কার। কিন্তু এই সবকিছুকে ছাপিয়ে কঙ্গনা রানাউত হয়ে উঠেন বিতর্ক আর সমালোচনার মূল কেন্দ্রবিন্দু। সিনেমা থেকে শুর করে যেকোন বিষয়ে মিডিয়ার আকর্ষন পেতে মন্তব্য করে আলোচনায় থাকার চেষ্টা করেন কঙ্গনা রানাউত। হৃতিকের সাথে সম্পর্ক এবং বিচ্ছেদের পর সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুর পর বলিউডে স্বজনপ্রীতি, স্টার কিডদের নিয়ে মিডিয়ার সামনে আপত্তিকর মন্তব্য করে নিজেকে আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে রেখেছেন সব সময়।

তবে তার এই মন্তব্যগুলো যতটা যৌক্তিক তার চেয়ে বেশী ছিলো মিডিয়া আকর্ষনের উপলক্ষ্য মাত্র। হাতে গোনা কয়েকটি সিনেমার বক্স অফিস সাফল্যে নিজেকে বলিউডের লেডি সুপারস্টার দাবী করেন তিনি। বলিউডের স্টার কিড থেকে শুরু করে নির্মাতা, প্রযোজক, তারকা কেউই কঙ্গনা রানাউতের তীর্যক আস্ফালন থেকে রেহাই পাননি। তবে মজার বিষয় হচ্ছে স্বঘোষিত লেডি সুপারস্টার কঙ্গনা রানাউতের বাস্তবতা আসলে তার নিজের মন্তব্যের চেয়ে অনেক আলাদা। শুধুমাত্র বক্স অফিসের হিসেব ধরলেই সেটা স্পষ্ট হয়ে উঠে।

- Advertisement -

কঙ্গনা রানাউত অভিনীত সর্বশেষ মুক্তিপ্রাপ্ত সিনেমা ‘ধাকড়’ বক্স অফিসে বিপর্যয়ের সবচেয়ে বড় উদাহরণ হিসেবে আবির্ভুত হয়েছে। মুক্তির প্রথম দিন থেকেই দর্শকদের কাছ থেকে প্রত্যাখ্যাত হয়েছে ১০০ কোটি বাজেটের এই সিনেমাটি। সবমিলিয়ে প্রথম সপ্তাহে ৩ কোটির মত আয় করতে সক্ষম হয়েছে ‘ধাকড়’। মাত্র তিন দিনের মাথায় ভারতের বিভিন্ন প্রেক্ষাগৃহে সিনেমাটির প্রদর্শনী বাতিল করেছেন নির্মাতারা। দ্বিতীয় সপ্তাহের প্রথম দিন (অষ্টম) শুক্রবার ভারতে সিনেমাটির মোট টিকেট বিক্রি হয়েছে ২০টি, টাকার হিসেবে যার আয়ের পরিমাণ ৪,৪২০।

তবে স্বঘোষিত লেডি সুপারস্টার কঙ্গনা রানাউতের বক্স অফিসে ফ্লপের ধারাবাহিকতা দীর্ঘদিনের। ‘ধাকড়’ সিনেমার আগের ৮টি সিনেমাও বক্স অফিসে মুখ থুবড়ে পড়েছিলো। ‘ধাকড়’ এরপর সেই তালিকাটা আরো লম্বা করলেন কঙ্গনা রানাউত। টানা ৯টি সিনেমায় নির্মাতাদের লগ্নি করা টাকা ফেরাতে ব্যর্থ অভিনেত্রী নিজেকে লেডি সুপারস্টার বলে দাবী করাটা কতটুকু যৌক্তিক সেটা দর্শকই বিচার করবেন। চলুন দেখে নেয়া যাক কঙ্গনা রানাউতের টানা ৯ ফ্লপ সিনেমার বিস্তারিত।

- Advertisement -

০১। আই লাভ এনঅয়াই (২০১৫)
কঙ্গনা রানাউত অভিনীত ‘আই লাভ এনঅয়াই’ সিনেমাটিতে তিনি অভিনয় করেছেন সানি দেওলের বিপরীতে। ২০১৫ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত এই সিনেমাটি বক্স অফিসে ডিজাস্টার হিসেবে নাম লিখিয়েছে। ১৬ কোটি রুপি বাজেটে নির্মিত সিনেমাটি বক্স অফিসে মাত্র ১.১৯ কোটি রুপি আয় করতে সক্ষম হয়।

০২। কাট্টি বাট্টি (২০১৫)
২০১৫ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত ‘কাট্টি বাট্টি’ সিনেমাটিতে কঙ্গনা রানাউতের সাথে অভিনয় করেছেন ইমরান খান। বলিউডে ইমরান খান অভিনীত শেষ সিনেমা ‘কাট্টি বাট্টি’ বক্স অফিসে ডিজাস্টার হয়েছিলো। এই সিনেমার পর ইমরান খানকে আর বলিউডে দেখা যায়নি। বক্স অফিসে সিনেমাটির আয়ের পরিমাণ ছিলো মাত্র ২৩.৭৫ কোটি রুপি।

০৩। রেঙ্গুন (২০১৭)
কঙ্গনা রানাউত অভিনীত ‘রেঙ্গুন’ সিনেমাটি ছিল বিশাল ভরদ্বাজের সবচেয়ে প্রত্যাশিত চলচ্চিত্রগুলির মধ্যে একটি। কিন্তু মুক্তির পর কঙ্গনা রানাউতের ফ্লপের ধারাবাহিকতা ধরে রেখে পিরিয়ড ড্রামা সিনেমাটি বক্স অফিসে মুখ থুবড়ে পরে। ৬১ কোটি বাজেটের সিনেমাটি মাত্র ২০.৮৭ কোটি আয় করেছিল। শাহীদ কাপুর এবং কঙ্গনা রানাউত অভিনীত ‘রেঙ্গুন’ সিনেমাটি ২০১৭ সালে মুক্তি পেয়েছিলো।

০৪। সিমরান (২০১৭)
২০১৭ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত ‘সিমরান’ সিনেমার কেন্দ্রিয় চরিত্রে অভিনয় করেছেন কঙ্গনা রানাউত। সিনেমাটিতে তার অভিনয় প্রশংসিত হলেও তা নির্মাতাদের টাকা ফেরত নিশ্চিত করতে পারনি! হানসাল মেহতা পরিচালিত এই সিনেমাটি বক্স অফিসে মাত্র ১৪.৮৮ কোটি রুপি আয় করতে সক্ষম হয়। যেখানে সিনেমাটির বাজেট ছিলো ২৮ কোটি রুপি।

০৫। মণিকর্ণিকাঃ দ্য কুইন অফ ঝাঁসি (২০১৯)
কঙ্গনা রানাউত অভিনীত অন্যতম সেরা সিনেমা ‘মণিকর্ণিকাঃ দ্য কুইন অফ ঝাঁসি’। এই সিনেমাটির জন্য তিনি ভারতীয় সিনেমা দর্শকদের কাছে আলাদা সম্মানের যোগ্য এতে কোন সন্দেহ নেই। অভিনয়ের পাশাপাশি সিনেমাটির সহকারী পরিচালক হিসেবে ছিলেন কঙ্গনা রানাউত। তবে এই সিনেমাটিও বক্স অফিসে ফ্লপ হয়েছিলো। এই তালিকার অন্য সিনেমার মোট পুরোপুরি ডিজাস্টার না হলেও ৯৯ কোটি রুপি বাজেটে নির্মিত সিনেমাটির বক্স অফিস আয়ের পরিমাণ ছিলো ৯০.৮১ কোটি রুপি।

০৬। জাজমেন্টাল হ্যায় কেয়া (২০১৯)
কঙ্গনা রানাউত ২০১৯ সালে দুটি অসামান্য পারফরম্যান্স দিয়েছেন, কিন্তু দুটি সিনেমাই বক্স অফিসে ফ্লপ হয়েছিলো। ২০১৯ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত কঙ্গনা রানাউত এবং রাজকুমার রাও অভিনীত সিনেমাটি আলোচিত হলেও বক্স অফিসে ভালো ব্যবসা করতে ব্যর্থ হয়েছিলো। ৩৫ কোটি বাজেটের সিনেমাটি বক্স অফিসে মাত্র ৩৩.৯৫ কোটি রুপি আয় করেছিল।

০৭। পাঙ্গা (২০২০)
কঙ্গনা রানাউত অভিনীত ‘পাঙ্গা’ সিনেমাটি সমালোচকদের কাছে প্রশংসিত হলেও বক্স অফিসে ব্যর্থ হয়েছিলো। ইতিবাচক পর্যালোচনা সত্ত্বেও আগের সিনেমাগুলোর মোট এই সিনেমাটিও নির্মাতাদের জন্য একটি বাণিজ্যিক হতাশা হিসেবে আবির্ভুত হয়। ৪৯ কোটি রুপি বাজেটের সিনেমাটি আয় করেছিলো মাত্র ২২.৩৬ কোটি রুপি।

০৮। থালাইভি (২০২১)
‘থালাইভি’ সিনেমায় কঙ্গনা রানাউত প্রাক্তন অভিনেত্রী এবং তামিলনাড়ুর মুখ্যমন্ত্রী জে. জয়ললিতার ভূমিকায় অভিনয় করেছেন। সিনেমাটিতে তার অভিনয় দুর্দান্ত প্রশংসা পেতে সক্ষম হয়েছিলো। চলচ্চিত্রটি অত্যধিক ইতিবাচক পর্যালোচনা পাওয়ার পরও মহামারীর কারণে, বক্স অফিস মুখ থুবড়ে পরে। ৯৩ কোটির বাজেটে নির্মিত এই সিনেমাটি মাত্র ১.৯১ কোটি রুপি আয় করেছিল।

০৯। ধাকড় (২০২২)
কঙ্গনা রানাউতের স্পাই অ্যাকশন থ্রিলার ‘ধাকড়’ সিনেমাটি মুক্তি পেয়েছিলো কার্তিক আরিয়ানের ‘ভুল ভুলাইয়া ২’ সিনেমার সাথে। কিন্তু মুক্তির প্রথম দিন থেকেই সিনেমাটির প্রতি দর্শকবিমুখতা দেখা গেছে। ১০০ বাজেটে নির্মিত এই সিনেমাটি বক্স অফিসে আরো একটি ডিজাস্টার হিসেবে আবির্ভুত হয়েছে। জানা গেছে বক্স অফিসে ব্যর্থতার কারনে এখন সিনেমাটির স্যাটেলাইট এবং ওটিটি স্বত্ব কেনার ব্যাপারে কেউ আগ্রহ দেখাচ্ছে না।

নিঃসন্দেহে কঙ্গনা রানাউত অভিনীত এই সিনেমাগুলোতে তার অভিনয় প্রশংসার দাবীদার। কিন্তু নিজেকে লেডি সুপারস্টার দাবী করা কঙ্গনা রানাউত টানা নয়টি ফ্লপ সিনেমার মাধ্যমে নিজের অবস্থানকে অনেকটাই দুর্বল করে দিয়েছেন। সেই সাথে ইন্ডাস্ট্রি নিয়ে মিডিয়ার কাছে বেফাঁস মন্তব্য করে আলোচনায় থাকার চেষ্টা তাকে অনেকটাই একঘরে করে দিয়েছে। সেই সাথে সিনেমাগুলোর বক্স অফিস ব্যর্থতা তার কাছ থেকে দর্শকদের মুখ ফিরিয়ে নেয়ার ইঙ্গিত দেয়।

আরো পড়ুনঃ
দর্শকশূন্যতায় বাতিল হয়েছিলো যে বিগ বাজেট সিনেমাগুলোর প্রদর্শনী!
দর্শক শূন্যতায় বাতিল হচ্ছে ‘ধাকড়’ প্রদর্শনী: পরিবর্তে চলছে ‘ভুল ভুলাইয়া ২’
শুধু সাফল্য নয় বক্স অফিস ডিজেস্টারের তালিকায়ও শীর্ষে তেলুগু সিনেমা

এ সম্পর্কিত

আরো পড়ুন

- Advertisement -
- Advertisement -

সর্বশেষ

মুক্তি প্রতীক্ষিত

  • লিডার আমিই বাংলাদেশ
    লিডার আমিই বাংলাদেশ