প্রেক্ষাগৃহে প্রদর্শনের ৫০ দিনে ৩০টি ঐতিহাসিক রেকর্ড গড়েছে ‘পাঠান’

প্রেক্ষাগৃহে প্রদর্শনের ৫০

‘বেশরম রঙ’ গানের কারনে ব্যাপক বির্তক এবং বাধার মুখে মুক্তি পেয়েছিলো শাহরুখ খান এবং দীপিকা পাডুকোন অভিনীত ‘পাঠান’ সিনেমাটি। ২৫শে জানুয়ারি মুক্তিপ্রাপ্ত এই সিনেমাটির বিরুদ্ধে বয়কট প্রচারণাও চালানো হয়েছিলো বেশ জোরেশোরে। কিন্তু মুক্তির পর সব হিসেব ওলটপালট করে দিয়েছে শাহরুখ খানের বড় পর্দায় প্রত্যাবর্তনের সিনেমা ‘পাঠান’। বয়কট প্রচারণাকে বন্ধ করার পাশাপাশি উদ্বোধনী দিন থেকেই রেকর্ড গড়ে চলছে এই সিনেমাটি। সম্প্রতি প্রেক্ষাগৃহে  প্রদর্শনের ৫০ দিন পূর্ন করেছে ‘পাঠান’। আর এই সময়ে বিশ্বব্যাপী বক্স অফিসে ৩০টি ঐতিহাসিক রেকর্ড গড়েছে এই সিনেমা।

৫০ দিন শেষে ভারতীয় বক্স অফিসে শাহরুখ খান এবং দীপিকা পাডুকোনের ‘পাঠান’ সিনেমাটির হিন্দি সংস্করণ থেকে আয় (নেট) হয়েছে ৫২২ কোটি রুপি। আর সব ভাষায় ভারতীয় বক্স অফিসে সিনেমাটির মোট নেট আয়ের পরিমাণ দাঁড়িয়েছে ৫৪০ কোটি রুপি। অন্যদিকে আন্তর্জাতিক বাজারে ‘পাঠান’ সিনেমাটি গ্রোস আয় করেছে ৪৮ মিলিয়ন (৩৯৫ কোটি রুপি)। চীনের বাজার ছাড়াই আন্তর্জাতিক বক্স অফিস থেকে এই আয় নিশ্চিত করেছে ‘পাঠান’। সব মিলিয়ে বিশ্বব্যাপী বক্স অফিসে সিনেমাটির মোট গ্রোস আয়ের পরিমাণ ১০৪০ কোটি রুপির বেশী।

বলিউড সিনেমার বক্স অফিসে ইতিহাস পর্যালোচনা করলে প্রতীয়মান হয় যে, ‘পাঠান’ সিনেমার মাধ্যমে রাজার মতই ফিরেছেন শাহরুখ খান। বক্স অফিসের রেকর্ড আয়ের পাশাপাশি ‘পাঠান’ সিনেমার গুরুত্ব অন্য জায়গায়। মহামারী পরবর্তি বক্স অফিসে বলিউড সিনেমার বিরুদ্ধে নেতিবাচক প্রচারণা এবং সিনেমাগুলোর প্রেক্ষাগৃহে মুখ থুবড়ে পরা নিয়মিত ঘটনা হয়ে দাঁড়িয়েছিল। দীর্ঘ চার বছর পর নিজের প্রত্যাবর্তনের পাশাপাশি বলিউডের জৌলুস ফিরিয়ে আনার উপলক্ষ্য হিসেবে হাজির হয়েছেন বলিউড বাদশা। প্রেক্ষাগৃহে প্রদর্শনের ৫০ দিনে ‘পাঠান’ সিনেমার ৩০টি ঐতিহাসিক রেকর্ডে কিছু চিত্র পাঠকদের জন্য তুলে ধরা হলো।

০১। উদ্বোধনী দিনে সর্বোচ্চ আয়ের হিন্দি সিনেমা
হিন্দি সিনেমা হিসেবে উদ্বোধনী দিনে সর্বোচ্চ আয়ের রেকর্ড গড়েছে শাহরুখ খান অভিনীত ‘পাঠান’। প্রথম দিনে সিনেমাটির হিন্দি সংস্করণ থেকে আয়ের পরিমাণ ছিলো ৫৫ কোটি রুপি। আর তেলুগু এবং তামিল সংস্করণ থেকে এসেছে আরো ২ কোটি রুপি। স্বাভাবিক কর্মদিবসে মুক্তি পাওয়ার পরও এই আয়ের মাধ্যমে সবাইকে চমকে দিয়েছিলো এই সিনেমা। এর আগে উদ্বোধনী দিনে সর্বোচ্চ আয়ের সিনেমা ছিলো ছুটির দিনে মুক্তিপ্রাপ্ত ‘ওয়ার’। আর ছুটির দিন উদ্বোধনী দিনে সর্বোচ্চ আয়ের রেকর্ড গড়েছিল প্যান ইন্ডিয়া ব্লকবাস্টার ‘বাহুবলীঃ দ্য কনক্লুশন’।

০২। উদ্বোধনী দিনে বিশ্বব্যাপী ১০০ কোটি রুপি আয় করা প্রথম হিন্দি সিনেমা
ভারতের পাশাপাশি আন্তর্জাতিক বাজারেও দুর্দান্ত উদ্বোধনী পেতে সক্ষম হয়েছিলো শাহরুখ খান এবং দীপিকা অভিনীত ‘পাঠান’। গ্রোস আয়ের হিসেবে মুক্তির প্রথম দিনে ১০০ কোটি রুপি আয় করা প্রথম হিন্দি সিনেমা হিসেবে রেকর্ড গড়েছে ‘পাঠান’। উদ্বোধনী দিনে বিশ্বব্যাপী বক্স অফিসে সিনেমাটির মোট গ্রোস আয়ের পরিমাণ ছিলো ১০৬ কোটি রুপি। এর মধ্যে প্রায় ৩৭ কোটি রুপি এসেছে আন্তর্জাতিক বাজার থেকে। ভারতের পাশাপাশি আন্তর্জাতিক বাজারেও বক্স অফিসের সুনামি হিসেবে আবর্ভুত হয়েছে বহুল প্রতীক্ষিত এই সিনেমা।

০৩। সর্বাধিক ৫০ কোটি রুপির বেশী আয়
বলিউড এবং হিন্দি সিনেমার ইতিহাসে সবচেয়ে অনন্য রেকর্ড গড়েছে ‘পাঠান’। মুক্তির পর প্রথম পাঁচদিনের মধ্যে চারদিন ভারতীয় বক্স অফিসে সিনেমাটির আয় ছিলো ৫০ কোটি রুপির বেশী। এর মাধ্যমে সর্বাধিক ৫০ কোটি রুপির বেশী আয় সিনেমার অবিশ্বাস্য রেকর্ড গড়েছে এই সিনেমা। উদ্বোধনী দিনে ৫৭ কোটি রুপির পর দ্বিতীয় দিন সিনেমা আয় করেছিলো ৭০ কোটি রুপি। এরপর চতুর্থ এবং পঞ্চম দিনে ভারতীয় বক্স অফিসে সিনেমাটির আয় ছিলো যথাক্রমে ৫৩ এবং ৬০ কোটি রুপি।

০৪। উদ্বোধনী সপ্তাহান্তে সর্বোচ্চ আয়ের হিন্দি সিনেমা
মুক্তির পর পুরো সপ্তাহান্তে প্রেক্ষাগৃহে ‘পাঠান’ সিনেমার তাণ্ডব অব্যাহত ছিলো। ২৫শে জানুয়ারি বুধবার হওয়ার কারনে মোট পাঁচদিনে সপ্তাহান্ত পেয়েছিলো এই সিনেমা। প্রথম পাঁচদিনে বিশ্বব্যাপী বক্স অফিসে রীতিমত সুনামি বইয়ে দিয়েছে শাহরুখ খান অভিনীত ‘পাঠান’। পাঁচদিনে উদ্বোধনী সপ্তাহান্তে বিশ্বব্যাপী বক্স অফিসে গড়ে ১০০ কোটি রুপির বেশী আয় করেছে সিনেমাটি। বিশ্বব্যাপী বক্স অফিসে ৫৪০ কোটি রুপি আয়ের মাধ্যমে উদ্বোধনী সপ্তাহান্তে সর্বোচ্চ আয়ের হিন্দি সিনেমার রেকর্ড গড়েছে ‘পাঠান’।

০৫। একদিনে সর্বোচ্চ আয়ের রেকর্ড
মুক্তির দ্বিতীয় দিন ভারতের প্রজাতন্ত্র দিবসের ছুটিকে কাজে লাগিয়ে নতুন রেকর্ড গড়েছে শাহরুখ খানের অল টাইম ব্লকবাস্টার সিনেমা ‘পাঠান’। উদ্বোধনী দিনে ৫৭ কোটি রুপির পর দ্বিতীয় দিন ভারতীয় বক্স অফিসে সিনেমাটির আয় ছিলো ৭০ কোটি রুপি। এর মাধ্যমে বলিউড সিনেমার ইতিহাসে একদিনে সর্বোচ্চ আয়ের রেকর্ড গড়েছে ‘পাঠান’। মজার ব্যাপার হচ্ছে একদিনে সর্বোচ্চ আয়ের রেকর্ডের তালিকায় দ্বিতীয় এবং তৃতীয় অবস্থানেও রয়েছে ‘পাঠান’। মুক্তির চতুর্থ দিন এবং প্রথম দিন ভারতীয় বক্স অফিসে এর আয় ছিলো যথাক্রমে ৬০ এবং ৫৭ কোটি রুপি।

০৬। দ্রুততম সময়ে ২০০, ৩০০, ৪০০ কোটি রুপি আয়
হিন্দি সিনেমার ইতিহাসের সবচেয়ে দ্রুততম সময়ে ২০০, ৩০০, ৪০০ কোটি রুপি আয়ের রেকর্ড গড়েছে শাহরুখ খান অভিনীত ‘পাঠান’ সিনেমাটি। বিশ্বব্যাপী বক্স অফিসে এই রেকর্ড গড়তে সিনেমাটির সময় লেগেছে যথাক্রমে ২, ৩ এবং ৪ দিন। এছাড়া ভারতীয় বক্স অফিসেও এই রেকর্ড গড়েছে সিনেমাটি। ‘কেজিএফ চ্যাপ্টার ২’ সিনেমার রেকর্ড ভেঙ্গে ভারতীয় বক্স অফিসে দ্রুততম সময়ে ২০০ এবং ৩০০ কোটি রুপি আয়ের রেকর্ড গড়েছে ‘পাঠান’। ভারতীয় বক্স অফিসে ২০০ এবং ৩০০ রুপি আয়ের জন্য সিনেমাটির সময় লেগেছে যথাক্রমে ৪ দিন এবং ৭ দিন।

০৭। প্রথম বলিউড সিনেমা হিসেবে ৪০০ এবং ৫০০ কোটি রুপি আয়
নেট আয়ের হিসেবে প্রথম বলিউড সিনেমা হিসেবে ভারতীয় বক্স অফিসে ৪০০ এবং ৫০০ কোটি রুপি আয়ের রেকর্ড গড়েছে ‘পাঠান’। এর আগে ভারতীয় বক্স অফিসে ৪০০ এবং ৫০০ কোটি রুপি আয় করা হিন্দি সিনেমাগুলো ছিলো দক্ষিণ ভারতীয়। আর বলিউড সিনেমা হিসেবে আমির খানের ‘দাঙ্গাল’ সিনেমাটির আয় ছিলো ৩৭৫ কোটি রুপি। চার বছর পর শাহরুখ খানের বড় পর্দায় প্রত্যাবর্তনের মাধ্যমে প্রথম বলিউড সিনেমা হিসেবে ৪০০ এবং ৫০০ কোটি রুপি আয় করেছে ‘পাঠান’। আমির খান প্রথম ১০০, ২০০ এবং ৩০০ কোটি রুপির সিনেমা উপহার দেয়ার পর শাহরুখ খান প্রথম ৪০০ এবং ৫০০ কোটি রুপি আয়ের সিনেমা উপহার দিলেন।

০৮। হিন্দি সিনেমার ইতিহাসের সর্বোচ্চ আয়ের সিনেমা
হিন্দি সিনেমার ইতিহাসের সর্বোচ্চ আয়ের সিনেমা হিসেবে আবর্ভুত হয়েছে শাহরুখ খানের ‘পাঠান’। এর আগে এই রেকর্ডটি একটি তেলুগু সিনেমা দখলে ছিলো। ২০১৭ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত এসএস রাজামৌলী পরিচালিত ‘বাহুবলীঃ দ্য কনক্লুশন’ সিনেমাটির হিন্দি সংস্করণ ভারতীয় বক্স অফিসে আয় করেছিলো ৫১০ কোটি রুপি। ছয় বছর পর সেই রেকর্ড ভেঙ্গে হিন্দি সিনেমার বক্স অফিসে বলিউডকে ফেরালেন শাহরুখ খান। ভারতীয় বক্স অফিসে ‘পাঠান’ সিনেমাটির হিন্দি সংস্করণ থেকে আয় ইতিমধ্যে ৫১৫ কোটি রুপি ছাড়িয়ে গেছে। আর সব ভাষা মিলিয়ে ভারতীয় বক্স অফিসে সিনেমাটির আয় ৫৪০ কোটি রুপির বেশী।

উপরে উল্লেখিত রেকর্ড ছাড়াও ভারতীয় এবং আন্তর্জাতিক বক্স অফিসে আরো ২২টি নতুন রেকর্ড গড়েছে শাহরুখ খানের ‘পাঠান’। আন্তর্জাতিক বক্স অফিসে শাহরুখ খান আগে থেকেই ভারতের সবচেয়ে বড় তারকা। ‘পাঠান’ সিনেমার মাধ্যমে সেই ধারণাকে আরো পাকাপুক্ত করছেন বলিউড বাদশা। চীনের বাজার ছাড়াই আন্তর্জাতিক বাজারে সিনেমাটি প্রায় ৪০০ কোটি রুপি আয় করতে সক্ষম হয়েছে। বলিউডের নিয়মিত সব আন্তর্জাতিক বাজারেই নতুন রেকর্ড গড়েছে এই সিনেমাটি। অস্ট্রেলিয়া থেকে শুরু করে যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য এবং মধ্য প্রাচ্যে নতুন মাইলফলক অতিক্রম করতে সক্ষম হয়েছে ‘পাঠান’।

প্রসঙ্গত, শাহরুখ খানের বড় পর্দায় প্রত্যাবর্তনের সিনেমাকে স্মরণীয় করে রাখতে প্রস্তুত ছিলেন ভক্তরা। তাই এর নির্মাতা যশ রাজ ফিল্মস সিনেমাটির মুক্তি দিয়েছে বিশাল আয়োজনে। প্রথমে ভারতে ৫,২০০ স্ক্রিনে মুক্তির পর দর্শকদের চাহিদার কারনে প্রথম দিনে আরো ৩০০ স্ক্রিন বাড়াতে বাধ্য হয়েছিলেন প্রদর্শকরা। এছাড়া ভারত ছাড়া বিশ্বের ১০০ দেশে সিনেমাটি মুক্তি পেয়েছে ২,৫০০ স্ক্রিনে। সব মিলিয়ে বিশ্বব্যাপী মোট ৮,০০০ স্ক্রিনে মুক্তি পেয়েছে বহুল প্রতীক্ষিত এই সিনেমাটি।

উল্লেখ্য যে, যশ রাজ ফিল্মসের স্পাই ইউনিভার্সের অংশ হিসেবে নির্মিত হয়েছে শাহরুখের ‘পাঠান’ সিনেমাটি। শাহরুখ খানের সাথে এই সিনেমায় আরো অভিনয় করেছেন দীপিকা পাডুকোন এবং জন আব্রাহাম। দীপিকাকে সিনেমাটিতে পাকিস্থানের গোয়েন্দা সংস্থার একজন কর্মকর্তা চরিত্রে দেখা গেছে। আর এতে জন আব্রাহাম থাকছেন নেতিবাচক চরিত্রে। এছাড়া এতে অতিথি চরিত্রে হাজির হচ্ছেন বলিউডের ভাইজান সালমান খান। আর সিনেমাটি পরিচালনা করেছেন ‘ওয়ার’ খ্যাত নির্মাতা সিদ্ধার্ত আনন্দ।

আরো পড়ুনঃ
বিশ্বব্যাপী বক্স অফিসে ১০০ কোটির যত রেকর্ড গড়েছে শাহরুখের ‘পাঠান’
বলিউড সিনেমা হিসেবে আন্তর্জাতিক বক্স অফিসে রেকর্ড গড়েছে ‘পাঠান’
‘বাহুবলী’র রেকর্ড ভেঙ্গে ইতিহাসের সর্বোচ্চ আয়ের হিন্দি সিনেমা ‘পাঠান’

By নিউজ ডেস্ক

এ সম্পর্কিত

%d