দক্ষিণের সিনেমা মানেই ব্লকবাস্টারঃ হিন্দি ডাব করা সিনেমার কঠিন বাস্তবতা

দক্ষিণের সিনেমা

তেলুগু সিনেমার স্বপ্নবাজ পরিচালিত এসএস রাজামৌলী পরিচালিত ‘বাহুবলীঃ দ্য কনক্লুশন’ সিনেমার ঐতিহাসিক সাফল্যের পর ভারতীয় সিনেমার আলোচনায় বলিউডের উপর দক্ষিণের সিনেমার রাজত্বের কথা বার বার ঘুরে ফিরে এসেছে। এরপর সাম্প্রতিক সময়ে ‘পুষ্পা দ্য রুল – পার্ট ওয়ান’, ‘আরআরআর’ এবং ‘কেজিএফ চ্যাপ্টার ২’ সিনেমার বিশাল সাফল্যের পর সেই আলোচনার পালে যোগ হয়েছে নতুন হাওয়া। কোন হিসেব নিকেশ ছাড়াই সবাই ধরে নিচ্ছেন দক্ষিণের সিনেমা মানেই ব্লকবাস্টার!

- Advertisement -

দক্ষিণের সিনেমার কাছে বলিউডের নাস্তানাবুধ হওয়ার আলোচনা আরো জোরালো হচ্ছে সাম্প্রতিক সময়ে বলিউডের সিনেমার ধারাবাহিক ব্যর্থতা। চলতি বছরের প্রথম ছয়মাসে বলিউডের মুক্তিপ্রাপ্ত সিনেমাগুলো মধ্যে শুধুমাত্র তিনটি সিনেমা বক্স অফিসে সাফল্য অর্জন করতে সক্ষম হয়েছে। ‘গাঙ্গুবাই কাঠিওয়ারি’, ‘দ্য কাশ্মীর ফাইলস’ এবং ‘ভুল ভুলাইয়া ২’ সিনেমাগুলোর ছাড়া বক্স অফিসে মুখ থুবড়ে পড়েছে বলিউডের বিগ বাজেটের একাধিক সিনেমা।

২০২২ সালে যেখানে ‘বচ্চন পান্ডে’, ‘জার্সি’, ‘হিরোপান্তি ২’, ‘রানওয়ে ৩৪’, ‘ধাকড়’ এবং ‘সম্রাট পৃথ্বীরাজ’ এর মত বিশাল বাজেটের সিনেমাগুলো বলিউড বক্স অফিসে মুখ থুবড়ে পড়েছে, সেখানে বলিউডের সিনেমার বাজারে ‘আরআরআর’ এবং ‘কেজিএফ চ্যাপ্টার ২’ সিনেমাগুলোর হিন্দি সংস্করণ অতীতের সব রেকর্ড ভেঙ্গে দিয়েছে। বলিউডের সিনেমাকে পিছনে ফেলে হিন্দি সিনেমার বাজারে সর্বকালের সবচেয়ে বেশী আয়ের সিনেমার তালিকায় প্রথম দুটি স্থান দখল করে নিয়েছে দক্ষিণের সিনেমার হিন্দি সংস্করণ।

- Advertisement -

তবে তথ্যগত তুলনা বিবেচনায়, বলিউডে হিন্দি ডাব করা সাউথ সিনেমার বাস্তবতা অনেকটাই ভিন্ন। হিন্দি ভাষায় ডাবকৃত কিছু সিনেমা যেমন বক্স অফিসে রেকর্ড আয় করতে সক্ষম হয়েছে, তেমনি কিছু সিনেমা বক্স অফিসে ডিজাস্টারও হতে দেখা গেছে। আর সংখ্যার বিবেচনায় ডিজাস্টারের পরিমাণই বেশী। এর মধ্যে কিছু সিনেমা নিজেদের আঞ্চলিক বক্স অফিসে দুর্দান্ত ব্যবসা করলেও হিন্দি সংস্করণ দর্শক টানতে ব্যর্থ হয়েছে। চলতি বছরের হিসেবে ২টি ব্লকবস্টারের বিপরীতে বক্স অফিসে ডিজাস্টার হওয়া হিন্দি ডাব করা দক্ষিণের সিনেমার সংখ্যা ৯টি।

চলতি বছরে এখন পর্যন্ত হিন্দিতে ডাব করে দক্ষিণের মোট ১১টি সিনেমা মুক্তি পেয়েছে। এর মধ্যে ‘আরআরআর’ এবং ‘কেজিএফ চ্যাপ্টার ২’ সিনেমাগুলো ছাড়া আর কোন সিনেমাই বক্স অফিসে ভালো করতে পারেনি।

ক্রম সিনেমার নাম হিন্দি সংস্করণ থেকে আয়  
০১ কেজিএফ চ্যাপ্টার ২ ৪২৭ কোটি রুপি
০২ আরআরআর ২৭৫ কোটি রুপি
০৩ রাধে শ্যাম ১৭.৪১ কোটি রুপি
০৪ মেজর ৯.৬ কোটি রুপি (২ সপ্তাহ)
০৫ বিক্রম – হিটলিস্ট ৬ কোটি রুপি (২ সপ্তাহ)
০৬ বিস্ট (রো) ২.৩ কোটি রুপি
০৭ ভালিমাই ২.১ কোটি রুপি
০৮ ৭৭৭ চার্লি ১.৬৫ কোটি রুপি
০৯ খিলাড়ী ১.৪ কোটি রুপি
১০ ইথারক্কুম থুনিন্ধবন ৬ লক্ষ রুপি
১১ জেমস ৫০ হাজার রুপি
- Advertisement -

এই সিনেমাগুলোর মধ্যে বক্স অফিসে ব্যবসা সফল দুটি সিনেমার ক্ষেত্রে একটি বিষয় বিবেচ্য। এই দুটি সিনেমারই ব্যবসায়িক সফলতার পিছনে কিছু বিষয় কাজ করেছে। ‘আরআরআর’ সিনেমাটির হিন্দি সংস্করণের সাফল্যের অন্যতম প্রধান কারন সিনেমাটির নির্মাতা এসএস রাজামৌলী। ‘বাহুবলী’ সিরিজের পর রাজামৌলী প্যান ইন্ডিয়া সবচেয়ে আলোচিত নির্মাতা। তাই তার নতুন সিনেমার প্রতি দর্শকদের আগ্রহ ছিলো আকাশচুম্বী। এই সিনেমাটি শুধু হিন্দিতে নয় প্যান ইন্ডিয়া বক্স অফিসে ঝড় তুলেছিলো।

অন্যদিকে ‘কেজিএফ চ্যাপ্টার ২’ সিনেমাটির সাফল্যের কারন হিসেবে আছে সিনেমাটির প্রথম পর্বের জনপ্রিয়তা। ২০১৮ সালের ক্রিসমাসে মুক্তিপ্রাপ্ত ‘কেজিএফ চ্যাপ্টার ১’ সিনেমার গল্পের ধারাবাহিকতা দেখা গেছে ‘কেজিএফ চ্যাপ্টার ২’ সিনেমায়। আগের পর্বটি বক্স অফিসে খুব বেশী আয় করতে না পারলেও ওটিটি এবং স্যাটেলাইটে দুর্দান্ত দর্শক টানতে সক্ষম হয়েছে। গারোরাকে হত্যার পর কেজিএফ এবং রকির ভবিষ্যৎ, সেই সাথে আধীরার ফিরে আসার ইঙ্গিত সবকিছু মিলে সিনেমাটির প্রতি দর্শকদের আগ্রহ অনেক বেশী ছিলো।

এদিকে, কমল হাসান অভিনীত ‘বিক্রম’ সিনেমাটির হিন্দি সংস্করণ বক্স অফিসে ভালো আয় করতে না পারলেও তামিল নাড়ু বক্স অফিসে সিনেমাটি সর্বকালের সব রেকর্ড ভেঙ্গে দিয়েছে। ‘বাহুবলীঃ দ্য কনক্লুশন’ সিনেমাকে পিছনে ফেলে তামিল নাড়ুতে সবচেয়ে বেশী আয় করা সিনেমা হিসেবে আবির্ভূত হয়েছে লোকেশ খানাগরাজ পরিচালিত তারকাবহুল এই সিনেমাটি। কমল হাসান ছাড়াও সিনেমাটিতে আরো অভিনয় করেছেন বিজয় সেতুপতি এবং ফাহাদ ফাসিল।

আরেকটি বিষয় এখানে উল্লেখ করা জরুরী। বলিউড বনাম সাউথের কথা যখন আমরা বলি, আমরা কিন্তু একটি ইন্ডাস্ট্রির সাথে চারটি ইন্ডাস্ট্রির তুলনা করছি। তামিল, তেলুগু, কন্নড় এবং মালায়লাম সব সিনেমাকে একদিকে রেখে বলিউডের সাথে তুলনা করছি। যেমন চলতি বছরে যে দুটি সিনেমার হিন্দি সংস্করণ রেকর্ড আয় করতে সক্ষম হয়েছে তার একটি তেলুগু এবং অন্যটি কন্নড় ইন্ডাস্ট্রির। সার্বিক দিন বিবেচনায় দক্ষিণের সিনেমা মানেই ব্লকবাস্টার এবং দক্ষিণের সিনেমা ছাপিয়ে যাচ্ছে বলিউডকে এটি বাস্তবতা নয়। হিন্দি ডাব করা সাউথ সিনেমার বক্স অফিসের বাস্তবতা আরো কঠিন।

আরো পড়ুনঃ
‘ব্রহ্মাস্ত্র’ ট্রেলার উম্মোচন: যা থাকছে অয়ন মুখার্জির অস্ত্রভার্সের প্রথম পর্বে!
‘এমপুরান’ থেকে ‘বিলাল’: মালায়ালাম ইন্ডাস্ট্রির আসন্ন ৫টি অ্যাকশন সিনেমা
যশ রাজ এবং রোহিত শেঠির পর গ্যাংস্টার ইউনিভার্স নিয়ে আসছেন প্রশান্ত নীল

এ সম্পর্কিত

আরো পড়ুন

- Advertisement -
- Advertisement -

সর্বশেষ

মুক্তি প্রতীক্ষিত

  • লিডার আমিই বাংলাদেশ
    লিডার আমিই বাংলাদেশ