ঢালিউডের দর্শক ফেরাতে শাকিব খানের সিনেমা চান প্রেক্ষাগৃহ মালিকরা

শাকিব খানের সিনেমা

গত কয়েক মাসে ঢালিউডে বেশ কয়েকটি সিনেমা মুক্তি পেলেও আশানুরূপ দর্শক দেখা যায়নি বাংলাদেশের প্রেক্ষাগৃহগুলোতে। কিছু কিছু সিনেমা নিয়ে ব্যপক আলোচনা হলেও প্রেক্ষাগৃহের ব্যবসায় এর তেমন কোন প্রভাব দেখা যায়নি বলে জানিয়েছেন সংশ্লিষ্টরা। ঢালিউডের দর্শক ফেরাতে শাকিব খানের সিনেমা প্রয়োজন বলে সম্প্রতি একটি সংবাদ মাধ্যমকে জানিয়েছেন ঢাকার ঐতিহ্যবাহী মধুমিতা সিনেমা হলের কর্ণধার ও প্রদর্শক সমিতির সাবেক সভাপতি ইফতেখার আহমেদ নওশাদ।

- Advertisement -

সিনেমার ব্যবসায়িক হালচাল এবং শাকিবের সিনেমা প্রসঙ্গে ইফতেখার আহমেদ নওশাদ বলেন, ‘ব্যাবসায়িক মন্দা কাটছে না। মধুমিতার মতো সিঙ্গেল স্ক্রিনের জন্য কমার্শিয়াল সিনেমা লাগবে। যারা নিয়মিত সিনেমার দর্শক তারা কমার্শিয়াল ধাঁচের সিনেমা পছন্দ করে। শাকিব খান নিয়মিত এ ধরনের সিনেমা করে থাকে। তার সিনেমার দর্শক আলাদা। হলে হলে আগের মতো ভিড় ও লম্বা লাইন ফেরাতে হলে শাকিব খানের সিনেমা মাস্ট লাগবে।‘

প্রেক্ষাগৃহ বাঁচাতে শাকিবের সিনেমা ছাড়া উপায় নেই উল্লেখ করে ইফতেখার আহমেদ নওশাদ আরো বলেন, ‘গণমানুষ তার (শাকিব খান) সিনেমা যে পরিমাণ দেখে, অন্যদের সিনেমা সেভাবে দেখে না। দেশে মধুমিতার মতো সিঙ্গেল স্ক্রিন বাঁচাতে শাকিব ছাড়া উপায় নেই! তার পুরনো সিনেমা চালালেও প্রচুর দর্শক আসে। হল মালিকদের কথা ভেবে এবং দর্শকের আগ্রহ বিবেচনায় শাকিবের সিনেমাগুলোর প্রযোজকদের বলতে চাই, তার সিনেমা মুক্তি দেওয়া উচিত। এবং এ রকম কমার্শিয়াল সিনেমাগুলো নিয়মিত হলে মুক্তির ব্যবস্থা চালু রাখতে হবে।‘

- Advertisement -

সিনেমার বর্তমান পরিস্থিতি এবং দর্শক খরা নিয়ে গাজীপুরের বর্ষা সিনেমা হলের ব্যবস্থাপক আবদুর রহমান বলেন, ‘গত কয়েক মাসে যেসব সিনেমা মুক্তি পেয়েছে, এগুলো ঠাণ্ডা মেজাজের। তিনি তার দীর্ঘদিনের অভিজ্ঞতার আলোকে বলেন, ঢাকার বাইরে যারা নিয়মিত সিনেমা দেখে তারা অ্যাকশন, রোম্যান্টিক ও বাণিজ্যিক সিনেমা পছন্দ করে। শ্রমজীবী যারা এক দিন সিনেমা দেখতে আসে তারা ঠাণ্ডা মেজাজের ছবি চায় না।‘

প্রেক্ষাগৃহের প্রয়োজনে শাকিবের সিনেমার গুরুত্বের কথা উল্লেখ করে আবদুর রহমান বলেন, ‘নাচ, গান, ফাইটিংয়ে ভরপুর সিনেমা এলে মানুষ হলে এসে হুমড়ি পড়ে। এর মধ্যে নতুন সিনেমা চালিয়েও লোকসান গুনেছি। অনেক দিন ধরে সিনেমা হলে শাকিব খানের নতুন সিনেমা আসছে না। এখনকার নতুন সিনেমাগুলোর চেয়ে শাকিব খানের পুরনো সিনেমায় দর্শক বেশি হয়। সিনেমা হলে দর্শক ফেরাতে শাকিব খানের সিনেমার কোনো বিকল্প নেই।’

- Advertisement -

প্রসঙ্গত, শাকিব খান অভিনীত বেশ কয়েকটি সিনেমা বর্তমানে মুক্তির অপেক্ষায় রয়েছে। এরমধ্যে সরকারী অনুদানের ‘গলুই’ সিনেমাটিতে শাকিব খানের বিপরীতে অভিনয় করেছেন পূজা চেরি। এছাড়া রয়েছে দর্শনা বনিকের বিপরীতে ‘অন্তরাত্মা’ এবং বুবলীর বিপরীতে ‘লিডার, আমিই বাংলাদেশ’। এদিকে সম্প্রতি জানা গেছে হিমেল আশরাফ পরিচালিত নতুন তিনটি সিনেমায় অভিনয় করছেন সময়ের সেরা সুপারস্টার।

আরো পড়ুনঃ
এফ আই মানিকের হাত ধরে রূপালী পর্দায় শাকিব খানের জীবনের গল্প!
সাম্প্রতিক ঘটনায় দুই নির্মাতার বিরুদ্ধে শাকিব খানের মামলার ঘোষনা!
আবারো নতুন লুকে সবাইকে চমকে দিলেন সুপারস্টার শাকিব খান

এ সম্পর্কিত

আরো পড়ুন

- Advertisement -

সর্বশেষ

মুক্তি প্রতীক্ষিত

  • লিডার আমিই বাংলাদেশ
    লিডার আমিই বাংলাদেশ